চট্টগ্রাম, রোববার, ২৪ জানুয়ারী ২০২১

[bangla_day]

বিষয় :

প্রকাশ :  ২০২১-০১-০১ ০৫:৪৬:০৫

কেমন যাবে ২০২১

ড. কে. সি. পাল
(স্বর্ণপদকপ্রাপ্ত ভারত), কাব্য, ব্যাকরণ, স্মৃতি, পৌরহিত্য, আয়ুর্বেদ (পঞ্চতীর্থ) ঢাকা জ্যোতিষশাস্ত্রী

(স্বর্ণপদকপ্রাপ্ত ভারত) কাব্য, ব্যাকরণ, স্মৃতি, পৌরহিত্য, আয়ুর্বেদ (পঞ্চতীর্থ) ঢাকা জ্যোতিষশাস্ত্রী, জ্যোতিষ ভাস্কর, জ্যোতিষ ভূষণ জ্যোতির্ষার্নব ও অসংখ্য অ্যাওয়ার্ডপ্রাপ্ত ভারত। কপঢ়ধষষ১৭@মসধরষ.পড়স

অনেকেই আছেন যারা ভাগ্যচক্রে বিশ্বাস করেন, আবার অনেকে করেন না। বিশ্বাস-অবিশ্বাসের বিষয়টি শেষ পর্যন্ত ব্যক্তিগত বিষয়। এরপরও বিশ্বজুড়ে রাশিচর্চা বা ভাগ্যচক্র নিয়ে আলোচনা-গবেষণা হয়। জেনে রাখা ভালো, রাশি কখনই ভাগ্যনিয়ন্তা নয়। মানুষের কর্মই তার ভাগ্য নির্ধারণ করে। জ্যোতিষশাস্ত্র কেবল কিছু সূত্র ধরে সম্ভাবনার পথ বাতলে দেয়।

বাংলাদেশ

দেশে এ বছর বহু কর্মসংস্থানের সৃষ্টি হবে। এ বছর আমেরিকা, চীন, জাপান, ভারত, রাশিয়া, অস্ট্রেলিয়া, বাংলাদেশের সঙ্গে সহযোগিতা বাড়াবে। সেই সঙ্গে রপ্তানি বাণিজ্যের বিপুল অর্থ সঠিক খাতে বিনিয়োগ হওয়ায় বাংলাদেশ বিশ্বের বুকে মডেল রাষ্ট্র হিসেবে স্বীকৃতি পাবে…

২০২১ সালে বাংলাদেশ বেশ কয়েকটি ক্ষেত্রে উন্নতির অগ্রযাত্রা অব্যাহত রাখতে সক্ষম হবে, আশা করা যায়। প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার বলিষ্ঠ নেতৃত্বে আইনশৃঙ্খলা ও চিকিৎসা খাতে ব্যাপক উন্নয়ন সাধিত হবে। সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের দুর্নীতি কমবে। বিদেশে পাচারকৃত অর্থ ফিরিয়ে আনা, মৃতপ্রায় কল-কারখানা চাঙ্গা, নিত্যনতুন শিল্প কারখানার বহিঃপ্রকাশ, বৈদেশিক সাহায্য প্রাপ্তি মরণঘাতক ব্যাধি করোনার মোকাবিলায় বাংলাদেশ অভাবনীয় সাফল্য লাভ করবে। রপ্তানি বাণিজ্য ও রিজার্ভ মানি বৃদ্ধি পেলেও জনশক্তি রপ্তানি কমতে পারে। দেশের শেয়ারবাজার কিছুটা অস্থির থাকতে পারে। বিভিন্ন প্রাকৃতিক দুর্যোগ, দুর্ঘটনা মোকাবিলায় পূর্ব সতর্কতা বাড়াতে হবে। এ বছর বিশেষ করে আমদানি-নির্ভর পণ্য, প্রাণদায়ী ওষুধ, শিশুখাদ্য, জ্বালানি, ভোজ্য দুই তৈল, স্বর্ণ-রৌপ্য-লৌহ ইলেকট্রিক ইলেকট্রনিক্স সামগ্রী, যানবাহন, মেশিনারিসহ প্রায় বেশির ভাগ নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যাদির দাম বাড়ার আশঙ্কা রয়েছে। দেশের চিকিৎসা ও প্রতিরক্ষা খাতের বাজেট বাড়তে পারে। বাংলাদেশে এ বছর যানবাহন, জাহাজ, ট্যাংক, শিল্প, কল-কারখানার নিত্যনতুন ইঞ্জিন, ইলেকট্র্রনিক্স সামগ্রী, টিভি, ফ্রিজ, এসি, প্রাণদায়ী ওষুধ উৎপাদন করে দেশের চাহিদা মিটিয়ে বিদেশে রপ্তানি করে গোটা বিশ্বকে তাক লাগিয়ে দেবে। দেশে এ বছর বহু কর্মসংস্থানের সৃষ্টি হবে। এ বছর আমেরিকা, চীন, জাপান, ভারত, রাশিয়া, অস্ট্রেলিয়া বাংলাদেশের সঙ্গে সহযোগিতা বাড়াবে। সেই সঙ্গে রপ্তানি বাণিজ্যের বিপুল অর্থ সঠিক খাতে বিনিয়োগ হওয়ায় বাংলাদেশ বিশ্বের বুকে মডেল রাষ্ট্র হিসেবে স্বীকৃতি পাবে। মৎস্য, মাংস ও কৃষি-খাতের ওপর সরকারের দৃষ্টি এবং সময়োপযোগী ব্যাংক ঋণ অব্যাহত থাকায় ধান, গম, ভুট্টা, পাট, সরিষা, পিঁয়াজ, রসুন, ডাল, আলু বিভিন্ন ফলফলাদিসহ গরু, মহিষ, বেড়া, ছাগল, পোলট্রি, শিল্প ও মৎস্যচাষে নিত্যনতুন প্রযুক্তি অবলম্বন করে অভাবনীয় সাফল্য লাভ শুধু নয়, দেশের খাদ্য ঘাটতি অনেকাংশে পূরণ হবে। কিছু অসাধু ব্যবসায়ী খাদ্যদ্রব্যে বিষাক্ত কেমিক্যাল ও প্রাণঘাতী জীবাণুর মিশ্রণ, নকল ওষুধ ও কসমেটিকস সামগ্রী, মাদকদ্রব্যের বাণিজ্য থাকলেও সরকারের সময়োপযোগী কঠোর পদক্ষেপ তা কুঁড়িতেই থামানো যাবে। দেশে আশ্রয়প্রাপ্ত রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীকে দেশে ফেরত পাঠানো প্রচেষ্টা জোরদার হতে পারে। এ বছর দেশে রাজনৈতিক আন্দোলন খুব একটা চোখে পড়বে না। জাতীয় সংসদের বিরোধী দল জাতীয় পার্টি, বিএনপি ও জামায়াতে ইসলামী বাংলাদেশসহ অন্য রাজনৈতিক দলগুলোর অবস্থার খুব একটা পরিবর্তন নাও হতে পারে। বৈজ্ঞানিক গবেষণা, তথ্যপ্রযুক্তি ও সোশ্যাল মিডিয়া নতুন মাত্রা পাবে, যা দেখে গোটা বিশ্ব বাংলাদেশকে চিনবে ডিজিটাল সোনার বাংলা হিসেবে।

আন্তর্জাতিক

শুক্রবার, যার সংখ্যা হলো (২০২১=৫+শুক্রবার=৬)=১১ অর্থাৎ ২। এ সংখ্যা ২ হলো পরিবর্তনশীল গ্রহ চন্দ্রের প্রতীক। যার জন্ম বুদ্ধির দেবতা বুধ ও শান্তির দেবতা শুক্রাচার্যকে নিয়ে। তাই তো এ বছর গোটা বিশ্বে দ্বিধাদ্বন্দ্ব, নিত্যনতুন গবেষণা, সৃষ্টির তাড়না, দোদুল্যময়তা, পরিবর্তন, পরিবর্ধনসহ বিচিত্র আকর্ষণের প্রতি প্রভাবিত হয়ে মানব মনে জ্বালবে বিশুদ্ধ জ্ঞানের আলো এবং বর্ষিত হবে শান্তির বারি। ঊনবিংশ শতাব্দীর পর ভারী ছিল বিশ্বমোড়ল নেতৃবৃন্দের সামরিক বাজেটের পাল্লা কিন্তু এ বছর চিকিৎসা খাতের বাজেট ও প্রাণদায়ী ওষুধ আবিষ্কার স্মরণকালের রেকর্ড ছাড়িয়ে যাবে। সেই সঙ্গে বিভিন্ন দাতাসংস্থা ও ধনকুবেরের ধনভান্ডার খুলতে বাধ্য হবে। এমনকি এক দেশ অন্য দেশের প্রতি সাহায্যের হাত বাাড়িয়ে ধরবে। তা ছাড়া একাধিক দেশে যুদ্ধবিগ্রহ ও অগ্নিস্ফূলিঙ্গের আগুন জ্বলে উঠলেও বুদ্ধির দেবতা বুধ ও প্রশান্তির দেবতা শুক্রাচার্যের শুভ প্রভাবে মাথাচাড়া দেওয়ার আশঙ্কা নেই। যার ফলে জঙ্গিগোষ্ঠীর নাশকতা খুব একটা চোখে পড়বে না। অবশ্য ধর্মান্ধ নাস্তিক্যবাদের দৌরাত্ম্য, সাম্প্রদায়কি দাঙ্গা-হাঙ্গামা, ধর্ম-অধর্মের যুদ্ধ, নারী শিশু নির্যাতন, চোরাকারবারীদের দৌরাত্ম্য, নেশা ও মাদকদ্রব্যের রমরমা বাণিজ্য, প্রাণদায়ী ওষুধসহ শিশুখাদ্যে ভেজাল, জালনোট বাণিজ্য বাড়বে বৈকি কমবে না। এ বছর রাজনৈতিক পটপরিবর্তনসহ বেশ কয়েকজন রাষ্ট্রনেতার পতন, স্বেচ্ছায় রাষ্ট্রীয় ক্ষমতা ছেড়ে দেওয়ার মানসিকতা স্মরণকালের রেকর্ড ছাড়িয়ে যাবে। এতদসত্ত্বেও সীমান্ত সংক্রান্ত বিরোধ, সামরিক ও কূটনৈতিক চাপ, একদেশ থেকে অন্যদেশে যাওয়ার ওপর নিষেধাজ্ঞা হবে প্রায় নিত্যমাসের শিরোনাম। সোনা রুপা হীরা তেল গ্যাস প্রত্নতত্ত্ব সামগ্রী চুরি আত্মসাৎ ও কুক্ষিগত করার প্রচেষ্টা বাড়তে পারে। পুরাতন নিদর্শনীয় স্থাপত্য ধ্বংস, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, ধর্মীয় উপাসনালয় এমনকি একাধিক দেশের পার্লামেন্টেও নাশকতামূলক কর্মকান্ড চলতে পারে। প্রাকৃতিক দুর্যোগ বন্যা, ঘূর্ণিঝড়, ভূমিকম্প, শৈত্যপ্রবাহ, গ্রীষ্মের তাপদাহ, বাস ট্রেন, নৌযান দুর্ঘটনা ছাড়াও কভিড-১৯ এর অনুরূপ নতুন মারণঘাতক দুরারোগ্য ব্যাধিপীড়া ও পানিবাহিত রোগে লোকক্ষয়ের মাত্রা বাড়তে পারে। তথাপি মহাকাশ গবেষণা, বৈজ্ঞানিক গবেষণা, স্যাটেলাইট স্থাপন, ইন্টারনেট পরিসেবা, তথ্যপ্রযুক্তি ও সোশ্যাল মিডিয়ার প্রচার ও প্রসার বহুলাংশে বৃদ্ধি পাবে। চীনের ওপর গোটা বিশ্বের প্রায় সিংহ ভাগ রাষ্ট্রের সামরিক কূটনৈতিক চাপ অব্যাহত থাকলেও অভ্যন্তরীণ সংকট চাপা দিয়ে উন্নতির অগ্রযাত্রা অব্যাহত রাখবে। ভারত আর্থিক, সামরিক ও চিকিৎসা খাতকে মজবুত করে বিশ্বকে তাক লাগিয়ে দেবে। রাশিয়া অস্ত্রশস্ত্রের রমরমা বাণিজ্যে ও সৈন্য-সামন্তের বৃদ্ধি ঘটিয়ে মধ্যপ্রাচ্যের প্রায় সিংহ ভাগ রাষ্ট্রের ওপর নিজস্ব আধিপত্য বিস্তার করতে সক্ষম হবে। আমেরিকা, ইরান, উত্তর কোরিয়া বারবার যুদ্ধের দিকে পা বাড়াবে। ইসরায়েল ফিলিস্তিনের যুদ্ধ বন্ধ হবে না। জাপান, কানাডা, অস্ট্রেলিয়া, ফ্রান্স, ব্রিটেন, আমেরিকা, রাশিয়া, চীন, ভারত, ইরান, কাতার, ভিয়েতনাম, তাইওয়ানসহ মধ্যপ্রাচ্য ইউরোপীয় ইউনিয়নের বেশ কয়েকটি দেশের আর্থিক ভিত মজবুত হবে। আফগানিস্তান, লিবিয়া, সিরিয়া, ফিলিস্তিন, মিসর, ইরাক, সোমালিয়া, পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কা, মিয়ানমার, মেক্সিকো, ইন্দোনেশিয়া প্রভৃতি রাষ্ট্রে অর্থনৈতিক মন্দা, বেকারত্ব, অর্ধাহারী ও অনাহারীর সংখ্যা বৃদ্ধি পাওয়ায় অন্ন বস্ত্র বাসস্থানের আশায় পাশ্ববর্তী রাষ্ট্রে আশ্রয় নেওয়ার চেষ্টা চালাবে। নরওয়ে, সুইডেন, ডেনমার্ক, ইতালি, জার্মানি, ব্রাজিল, স্পেন, আর্জেন্টিনা, পর্তুগাল প্রভৃতি রাষ্ট্রের আর্থিক তথ্যপ্রযুক্তি ও চিকিৎসা খাতের বহুল উন্নতি সাধিত হবে। মাঝখান থেকে চীন, জাপান, ভারত, থাইল্যান্ড, ভিয়েতনাম, তাইওয়ান ও বাংলাদেশ রপ্তানি বাণিজ্য বহুলাংশে বৃদ্ধি, রিজার্ভমানি চাঙ্গা, নিত্যনতুন শিল্প কল-কারখানার বহিঃপ্রকাশ ও চিকিৎসা খাতের বহুল উন্নয়ন সাধিত করে গোটা বিশ্বকে তাক লাগিয়ে দেবে।

১২ রাশির নতুন বছর

মেষ রাশি

শুভ তাং- ৯, ১৮, ২৭। শুভ রং- লাল, সোনালি, বেগুনি। শুভ বার- মঙ্গল, বুধ ও বৃহস্পতিবার। শুভ রত্ন- রক্ত প্রবাল, ইন্দ্রনীলা। শুভ ধাতু- তাম্র, দস্তা। শুভ মূল- অনন্ত ও শ্বেত বেড়েলার মূল।

মেষ রাশি : (২১ মার্চ-২০ এপ্রিল)

রাগী, জেদী, সাহসী, তেজস্বী, অগ্রগামী রক্তিম চেহারা ও পুরুষ রাশি। মেষ রাশির জাতব্যক্তিদের জন্য ২০২১ সালটি নিত্য-নতুন চমক সৃষ্টি করবে। কর্ম অর্থ ও ব্যবসা ভাগ্য আপনার অনুকূলে থাকবে। শিক্ষার্থীদের মনোবল দশগুণ চাঙ্গা হয়ে উঠবে। সদ্যসমাপ্ত শিক্ষার্থীদের কর্মপ্রাপ্তির পথ খুলবে। হারানো পিতৃ-মাতৃ ধন-সম্পদ সম্পত্তি ব্যবসা ফিরে পেতে পারেন। প্রেম রোমান্স বিনোদন ভ্রমণ বন্ধুত্ব শুভ। ভাইবোনদের সঙ্গের দীর্ঘদিনের মনোমালিন্য দূর হবে; বিবাহযোগ্যদের বিবাহকার্য সুসম্পন্ন হবে। দাম্পত্য সুখ শান্তি প্রতিষ্ঠা বজায় থাকবে। অবশ্য জীবনসঙ্গীর চিকিৎসায় ব্যয় বাড়তে পারে। সহকর্মী ও অংশীদারদের কাছ থেকে পূর্ণ সহযোগিতা পাবেন। যোগ্যকর্ম ও উচ্চশিক্ষার্থে বিদেশ গমনের সম্ভাবনা। সন্তানদের আচরণ মনবেদনার কারণ হতে পারে। শরীর-স্বাস্থ্যের প্রতি যত্নশীল হবেন। শত্রু ও বিরোধী পক্ষ পরাস্ত হবে। লৌকিকতায় যেমন ব্যয় হবে তেমনি উপহার সামগ্রীও প্রাপ্ত হবেন। মন সুর সংগীত ও ধর্মের প্রতি আকৃষ্ট থাকবে। শ্রমিক, কর্মচারীদের মনে মালিকপ্রীতি দেখা দেবে। মালিক ভাড়াটিয়ার মধ্যকার মতানৈক্য দূর হবে। অর্থ কড়ি ধার দেওয়া নেওয়া থেকে বিরত থাকা শ্রেয় হবে। সম্ভাব্য ক্ষেত্রে পরিবারে ছোট্ট নতুন মুখের আগমন ঘটতে পারে।

বৃষ রাশি

শুভ সংখ্যা-৬। শুভ তাং-৬, ১৫, ২৪। শুভ রং-সাদা, আকাশি, গোলাপি। শুভ বার- শুক্র, শনি ও বুধবার। শুভ রত্ন- হীরা, পান্না। শুভ ধাতু- প্লাটিনাম, স্বর্ণ। শুভ মূল- রামবাসক ও বৃদ্ধদ্বারকের মূল।

বৃষ রাশি (২১ এপ্রিল-২০ মে)

সুখ শান্তির পূজারি, প্রেম রোমান্স প্রিয়, ব্যক্তিত্বসম্পন্ন অধ্যবসায়ী ও দৃঢ় মনোবলের অধিকারী। ২০২১ সালটি বৃষ রাশির জাতব্যক্তিদের জন্য ভাগ্যলক্ষ্মীর কৃপা বর্ষিত হবে। নিত্য-নতুন প্লান-প্রোগ্রাম আর স্বপ্নসাধ পূরণের পথ প্রশাস্ত হবে। গৃহবাড়ি ভূমি সম্পত্তি ও যানবাহন লাভের প্রচেষ্টা বাস্তবায়িত হবে। বেকার যুবক-যুবতীদের কর্মপ্রাপ্তির বাসনা পূরণ হবে। বিবাহযোগ্যদের বিবাহ কার্য সুসম্পন্ন হলেও দাম্পত্য সুখ-শান্তি প্রতিষ্ঠা বজায় রাখা কঠিন হবে। সন্তানদের অধ্যয়ন ও স্বাস্থ্যবিষয়ক দুশ্চিন্তা বাড়তে পারে। শিক্ষার্থীদের কঠোর শ্রম মেধা ও অধ্যবসায়ের বলে ফসল ঘরে তুলতে হবে। ভাইবোনদের সঙ্গে সদ্ভাব বজায় থাকবে।

অপরিচিত কাউকে আশ্রয় দেওয়া ঠিক হবে না। শত্রু ও বিরোধী পক্ষ স্বজনদের সঙ্গে হাত মেলাতে পারে। দীর্ঘদিনের ভাঙা বন্ধুত্ব জোড়া লাগবে। মন সুর সংগীত ও ধর্মের প্রতি আকৃষ্ট থাকবে। সব ধরনের নেতিবাচক চিন্তা-চেতনা থেকে দূরে থাকুন। রাগ জেদ অহংকার আবেগ যথাসম্ভব বর্জন করার চেষ্টা করুন। না বুঝে চুক্তি সম্পাদনে সতর্ক থাকতে হবে। সব প্রতিকূলতা কাটিয়ে দুর্বার গতিতে এগিয়ে চলবেন।

মিথুন রাশি

শুভ সংখ্যা-৫। শুভ তাং- ৫, ১৪, ২৩। শুভ রং- সবুজ, সোনালি, রুপালি। শুভ বার- বুধ, শুক্র ও শনিবার। শুভ রত্ন-পান্না, পোখরাজ। শুভ ধাতু- সোনা। শুভমূল- বৃদ্ধদ্বারক ও বামুন হাটির মূল।

মিথুন রাশি (২১ মে-২০ জুন)

বুদ্ধিমান, কৌশলী, অধ্যবসায়ী, গবেষক, আত্মবিশ্বাসী ও পুরুষ রাশি। মিথুন রাশির জাত ব্যক্তিদের ২০২১ সালটিতে শ্রম মেধা কৌশল ও অধ্যবসায়ের বলে ফসল ঘরে তুলতে হবে। অবশ্য ভাগ্য আপনারই পক্ষে থাকবে। বেকার যুবক-যুবতীরা কর্ম পেলেও অর্থ ও ভাগ্য উন্নতি আপনার হাতে। নিত্যনতুন ব্যবসা-বাণিজ্যের পরিকল্পনা বাস্তবায়িত হবে। বিবাহযোগ্যদের বিবাহ, প্রেমী যুগলের প্রেমের স্বীকৃতি ও নিঃসন্তান দম্পতির কোল আলোকিত হতে পারে। শিক্ষার্থীদের মন ফেসবুক ইউটিউব প্রেম প্রসঙ্গ ও অনুচিত কাজবাজের প্রতি আকৃষ্ট হয়ে থাকবে। পিতা-মাতার কাছ থেকে ভরপুর সাহায্য-সহযোগিতা ও আশীর্বাদপ্রাপ্ত হবেন। দীর্ঘদিনের দাম্পত্য ও পারিবারিক কলহ-বিবাদের মীমাংসা হবে। সন্তানরা আজ্ঞাবহ হয়ে থাকবে এমনকি কোনো না কোনো পুরস্কার পাবে। শরীর-স্বাস্থ্যের প্রতি নজর রাখতে হবে। মামলা-মোকদ্দমা ও কোর্ট কেসের রায় পক্ষে আসবে। দুর্ঘটনা ও অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে মিছিল, মিটিং বর্জন করতে হবে। লটারি জুয়া রেস শেয়ার হাউজিং এড়িয়ে চলুন। গৃহবাড়িতে একাধিকবার কোনো না কোনো মাঙ্গলিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হতে পারে। ধৈর্য ধরে নিজের কাজে মন দিন। সফলতা ধরা দেবেই। ঋণ ও ধার কর্জ যথাসম্ভব এড়িয়ে চলার আবশ্যকতা রয়েছে।

কর্কট রাশি

শুভ সংখ্যা-২। শুভ তাং- ২, ১১, ২০, ২৯। শুভ রং- সাদা, সোনালি, সবুজ। শুভ বার- সোম, মঙ্গল ও বৃহস্পতিবার। শুভ রত্ন- মুক্তা, ক্যাটসআই। শুভ ধাতু- রুপা, স্বর্ণ। শুভ মূল- ক্ষিরিকা ও অশ্ব গন্ধার মূল।

কর্কট রাশি (২১ জুন-২০ জুলাই)

পরিবর্তনশীল, সাহসী, ধৈর্যশীল, সহজ-সরল প্রকৃতির ও স্ত্রী রাশি। ২০২১ সালটি কর্কট রাশির জাতব্যক্তিদের জন্য স্মরণীয় বরণীয় ও রেকর্ড সৃষ্টিকারী বছর হিসেবে গণ্য হবে। দুর্যোগের মেঘ সরে গিয়ে সুদিনের সূর্য উদিত হবে। বেকারদের কর্মপ্রাপ্তি, হারানো কর্ম পুনরুদ্ধার এমনকি কর্মব্যাপদ্দেশে বিদেশ গমনের যোগ প্রবল। দীর্ঘদিনের বাণিজ্যিক পরিকল্পনা বাস্তবায়িত হবে। অংশীদারদের সঙ্গের মতানৈক্যের অবসান ঘটায় ব্যবসার বহুল প্রচার ও প্রসার ঘটবে। শিক্ষার্থীদের মন লেখাপড়া থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়তে পারে। পিতা-মাতার সঙ্গে কারণে-অকারণে কলহ-বিবাদের সৃষ্টি হতে পারে। দীর্ঘদিনের দাম্পত্য কলহ-বিবাদের মীমাংসা হবে। বিবাহযোগ্যরা বিবাহের প্রস্তুতি নিন। নিঃসন্তান দম্পতিদের কোল আলোকিত হবে। ভাইবোন আত্মীয় পরিজনের কাছ থেকে ভরপুর সহযোগিতা পাবেন। নতুন প্রেম বন্ধুত্ব সুদূরপ্রসারী হবে। পরিবারের কোনো বয়স্ক লোকের জীবনাবসানজনিত শোক-দুঃখের অশ্রুজল ঝরতে পারে। আশ্রিত প্রতিপালিত ব্যক্তি ও শ্রমিক-কর্মচারীদের প্রতি তীক্ষè নজর দিন। নতুন গৃহবাড়ি, ফ্ল্যাট বাড়ি ও যানবাহন ক্রয়ের স্বপ্ন পূরণের সম্ভাবনা।

সিংহ রাশি

শুভ সংখ্যা-১। শুভ তাং-১, ১০, ১৯, ২৮। শুভ রং- লাল, গোলাপি, সোনালি। শুভ বার- রবি, মঙ্গল ও বৃহস্পতি। শুভরত্ন- চুনি, রক্তপ্রবাল। শুভ ধাতু-তাম্র, স্বর্ণ। শুভ মূল- ত্রিল্ব ও অনন্তমূল।

সিংহ রাশি (২১ জুলাই-২১ আগস্ট)

ক্রোধী, পরাক্রমী, যশস্বী, সহিষ্ণু, সহানুভূতিশীল ও ব্যক্তিত্ব সম্পন্ন। সিংহ রাশির জাতব্যক্তিদের জন্য ২০২১ সালটি অতিশয় শুভ সম্ভাবনাময় ও উন্নতির অগ্রযাত্রা অব্যাহত থাকবে। কর্ম ও ব্যবসা-বাণিজ্যে তরতাজা উন্নতি করে চলবেন। ব্যাংক ব্যালেন্স বৃদ্ধি পাবে এমনকি ঋণমুক্তির পথ প্রশস্ত হবে। যোগ্য কর্ম, শিক্ষা, ব্যবসা ও ধর্মীয় যাত্রায় বিদেশ গমনের সম্ভাবনা অমূলক নয়। মামলা-মোকদ্দমায় জয়লাভ করায় হারানো সম্পত্তি পুনঃরুদ্ধারের যোগ প্রবল। বিবাহে বাধা আসলে কৌশলী ভূমিকা নিন। প্রেমিক-প্রেমিকাদের দুঃসময়ে একে অপরকে সাহায্য করবেন। দাম্পত্য জীবন সুখকর করতে বিশ্বাস, আস্থা ধরে রাখুন। ভাইবোনের কাছ থেকে প্রাপ্ত সহযোগিতা স্বপ্ন পূরণ করবে। শিক্ষার্থীদের জন্য বছরটি স্মরণীয় ও বরণীয় হয়ে থাকবে, পিতা-মাতার স্বাস্থ্য বেশ ভালোই থাকবে। সন্তানদের গতিবিধির ওপর সর্বদাই তীক্ষè নজর রাখতে হবে। রাগ জেদ অহংকার আবেগ বর্জনের সঙ্গে কথাবার্তায় শালীনতা বজায় রাখতে হবে। অর্থকড়ির ব্যাপারে কাউকে অধিক বিশ্বাস করা ঠিক হবে না।

কন্যা রাশি

শুভ সংখ্যা-৫। শুভ তাং-৫, ১৪, ২৩।। শুভ রং- সবুজ, হালকা নীল। শুভ বার- বুধ, শুক্র ও শনি। শুভ রত্ন-পান্না, পিতম্বরী নীলা। শুভ ধাতু-স্বর্ণ দস্তা। শুভমূল- বৃদ্ধদ্বারক ও শ্বেত বেড়েলার মূল।

কন্যা রাশি : (২২ আগস্ট-২২ সেপ্টেম্বর)

বুদ্ধি ও সৎ গুণের স্বকীয়তা, কৌশলী, সঞ্চয়ী হিসাবী ও আকর্ষণীয় শক্তিসম্পন্ন। ২০২১ সালটি কন্যা রাশির জাতব্যক্তিদের জন্য সুখ-শান্তি ও সমৃদ্ধির বছর। ভাগ্যলক্ষ্মী প্রসন্ন হওয়ায় সফলতা আপনার দ্বারে এসে দাঁড়াবে। যে কাজে হাত দেবেন তাতেই কমবেশি সফলতাপ্রাপ্ত হবেন। কর্ম অর্থ সুনাম যশ প্রতিষ্ঠার গ্রাফ চাঙ্গা হয়ে উঠবে। শিক্ষার্থীদের হাতে নিত্যনতুন সুযোগ এসে হাজির হবে। পিতা-মাতার সঙ্গে কারণে-অকারণে মতানৈক্য সৃষ্টি হলেও দা দীর্ঘস্থায়ী হবে না। সন্তানদের সাফল্যে গৌরবান্বিত হবেন। প্রেমীযুগলের প্রেম বিবাহের মাধ্যমে সমাজে স্বীকৃতি পেতে পারে। ভাইবোনদের সঙ্গের মতানৈক্য দেখা দিলে তা সমাধানের চেষ্টা করবেন। এ বছর ইলেকট্রনিক্স সামগ্রী বৈদ্যুতিক সরঞ্জাম যানবাহনের যত্ন নিন। বিদেশ গমন ও স্বদেশ প্রত্যাবর্তনের পথ সুপ্রশস্ত হবে। চিকিৎসা সংক্রান্ত ব্যয় বৃদ্ধি পেতে পারে। তবে তা নিয়ে দুশ্চিন্তা করবেন না। ধার ও ঋণের জালে আটকে পড়ার সম্ভাবনা নেই। ঘুষ উৎকোচ গ্রহণ নেশাজাতীয় দ্রব্য সেবন ক্রয়-বিক্রয় অস্ত্রশস্ত্র বহন ও অপপ্রয়োগ থেকে বিরত থাকুন।

তুলা রাশি

শুভ সংখ্যা-৬। শুভ তাং-৬, ১৫, ২৪। শুভ রং-সাদা, বেগুনি, আকাশি। শুভ বার- শুক্র, মঙ্গল ও বুধবার। শুভ রত্ন- হীরা, গোমেদ। শুভ ধাতু-প্লাটিনাম, সিসা। শুভমূল- রামবাসক ও শ্বেত চন্দনের মূল।

তুলা রাশি : (২৩ সেপ্টেম্বর-২২ অক্টোবর)

শিল্পীসুলভ মনোভাব, স্বচ্ছ, ব্যক্তিত্ব সম্পন্ন, স্পষ্টবাদী, প্রেম রোমান্স কল্পনাপ্রিয়। তুলা রাশির জাতব্যক্তিদের ২০২১ সালটি নিত্যনতুন স্বপ্ন পূরণের বছর বলে গণ্য হবে। বিগত বেশ কয়েক বছরের তুলনায় এ বছর বহুল উন্নতি লাভ করবেন। বেকার যুবক-যুবতীদের কর্মপ্রাপ্তির বাসনা পূরণ হবে। নিত্যনতুন ব্যবসা-বাণিজ্যের পরিকল্পনা যেমন বাস্তবায়িত হবে তেমনি অচল ব্যবসা সচল হয়ে উঠবে। শিক্ষার্থীদের মনে অলসতা দানা বাঁধলেও লেখাপড়া বন্ধ হবে না। পিতা-মাতার স্বাস্থ্যের ব্যাপারে আরও যত্নশীল হোন। দীর্ঘদিনের দাম্পত্য ও পারিবারিক কলহ-বিবাদের মীমাংসা হবে। প্রেম-রোমান্স বিনোদন ভ্রমণ বিবাহ বন্ধুত্ব শুভ। ভাড়াটিয়া হলে মালিকের প্রতি সম্ভাব বজায় রাখুন।

বৃশ্চিক রাশি

শুভ সংখ্যা-৯। শুভ তাং-৯, ১৮, ২৭। শুভ রং- লাল, গোলাপি, আকাশি। শুভবার- মঙ্গল, বুধ ও রবিবার। শুভ রত্ন-রক্তপ্রবাল, ক্যাটস্ আই। শুভ ধাতু-তাম্র, ¯¦র্ণ। শুভমূল- অনন্ত ও অশ্বগন্ধার মূল।

বৃশ্চিক রাশি : (২৩ অক্টোবর-২১ নভেম্বর)

নতুন কিছু সৃষ্টি, উদ্ভাবনী শক্তি, বলিষ্ঠ কণ্ঠস্বর, দৃঢ় মনোবল ও চুম্বকীয় শক্তি। ২০২১ সালটি বৃশ্চিক রাশির জাত ব্যক্তিদের জন্য সাফল্য লাভ শুধু নয় নিত্যনতুন চমক দেখাতে সমর্থ হবেন। কর্ম ব্যবসা-বাণিজ্যসহ চতুর্দিক থেকে তরতাজা উন্নতি করতে থাকায় ব্যাংক ব্যালেন্স ফুলে ফেঁপে উঠবে। দীর্ঘদিনের ঋণের বোঝা নামতে পারে। শিক্ষার্থীরা রাষ্ট্রীয় বা সামাজিক পুরস্কারে ভূষিত হতে পারেন। ভাইবোনদের সঙ্গে সম্ভাব বজায় রাখুন। দাম্পত্য সুখ-শান্তি বাড়বে। হারানো পিতৃমাতৃ ধনসম্পদ সম্পত্তি ফিরে পাওয়ার পথ খুলবে। সম্ভাব্য ক্ষেত্রে পরিবারে ছোট্ট নতুন মুখের আগমন ঘটতে পারে। প্রেমী যুগলের জন্য বছরটি স্মরণীয় বরণীয় ও রেকর্ড সৃষ্টি হয়ে থাকবে।

ধনু রাশি

শুভ সংখ্যা-৩। শুভ তাং-৩, ১২, ২১, ৩০। শুভ রং-হলুদ, মেরুন, বেগুনি। শুভ বার-বৃহস্পতি, শুক্র ও সোমবার। শুভ রত্ন-পোখরাজ, নীলা, শুভ ধাতু-স্বর্ণ। শুভমূল- বামুনহাটি ও শ্বেত বেড়ালার মূল

ধনু রাশি : (২২ নভেম্বর-২০ ডিসেম্বর)

ভদ্রোচিত স্বভাব, দৃঢ়চেতা, নেতৃত্ব প্রভুত্ব কর্তৃত্ব প্রিয় ও ধর্মপরায়ণ। ধনু রাশির জাত ব্যক্তিদের ২০২১ সালে ভাগ্যলক্ষ্মীর কৃপাবর্ষিত হবে। কর্মের সুনাম যশ কাক্সিক্ষত স্বপ্ন পূরণ করবে। বাণিজ্যিক প্রচেষ্টা বাস্তবায়িত হবে। অংশীদার ও সহকর্মীদের পূর্ণ সহযোগিতা পাবেন। দীর্ঘদিনের আটকে থাকা কাজ সচল হবে। হারানো ধনসম্পদ সম্পত্তি ব্যবসা ফিরে পাওয়ার পথ খুলবে। শিক্ষার্থীদের হাতে নিত্যনতুন সুযোগ এসে হাজির হবে। সন্তানদের শরীর স্বাস্থ্যের প্রতি তীক্ষè নজর দিতে হবে। ভাইবোনদের সঙ্গে দীর্ঘদিনের কলহ-বিবাদের মীমাংসা হবে। দাম্পত্য জীবনে বিশ্বাস ও আস্থা ধরে রাখুন। রাগ জেদ অহংকার আবেগ বিপদ-আপদ ডেকে আনতে পারে।

মকর রাশি

শুভ সংখ্যা- ৮। শুভ তাং- ৮, ১৭, ২৬। শুভ রং-নীল, কালো, আকাশি। শুভ বার- শনি, মঙ্গল ও শুক্রবার। শুভ রত্ন- নীলা, গোমেদ। শুভ ধাতু- ইস্পাত, সীসা। শুভ মূল- শ্বেতবেড়ালা ও শ্বেত চন্দনের মূল।

মকর রাশি : (২১ ডিসেম্বর- ১৯ জানুয়ারি)

ন্যায় নিষ্ঠাবান, রহস্যময়ী, উদার, পরোপকারী, গম্ভীর প্রকৃতির ও পরিশ্রমী। ২০২১ সালটি মকর রাশির জাত ব্যক্তিদের জন্য অতিশয় শুভ সম্ভাবনাময় ও উন্নতির জোয়ার বইবে। সুনাম যশ প্রতিষ্ঠার গ্রাফ চাঙ্গা হয়ে উঠবে। কর্ম ও ব্যবসা-বাণিজ্যে বহুল উন্নতি সাধিত হবে। বেকার যুবক-যুবতীদের কর্মপ্রাপ্তির বাসনা পূরণ হবে। শিক্ষার্থীদের মন ফেসবুক ইউটিউব প্রেম প্রসঙ্গ ও অনুচিত কাজবাজের প্রতি আকৃষ্ট থাকবে। তবে লেখাপড়া বন্ধ হবে না। পিতা-মাতার কাছ থেকে ভরপুর সাহায্য-সহযোগিতা ও আশীর্বাদপ্রাপ্ত হবেন। শত্রু ও বিরোধী পক্ষ পরাস্ত হতে বাধ্য হবে। এ বছর কর্ম ও ব্যবসা-বাণিজ্য ব্যাপদ্দেশে স্বদেশ বিদেশ ভ্রমণ অতীতের বেশ কয়েক বছরের রেকর্ড ছাড়িয়ে যাবে।

কুম্ভ রাশি

শুভ সংখ্যা-৮। শুভ তাং-৮, ১৭, ২৬। শুভ রং-ব্লু, সাদা। শুভ বার-শনি, সোম ও শুক্রবার। শুভ রত্ন- রক্তমুখী নীলা, হীরা, শুভ ধাতু-লৌহ, প্লাটিনাম। শুভ মূল- শ্বেত বেড়ালা ও রামবাসনের মূল।

কুম্ভ রাশি : (২০ জানুয়ারি-১৮ ফেব্রুয়ারি)

অধিদৈবিক ও আধিভৌতিক শক্তি, কর্মপটু গোপনীয়তা প্রিয়। সদালাপি ও পুরুষ রাশি। কুম্ভ রাশির জাত ব্যক্তিদের জন্য ২০২১ সালটিতে দুর্যোগের মেঘ সরে গিয়ে সুদিনের সূর্য উদিত হবে। বেকারদের কর্মপ্রাপ্তি, হারানো কর্ম পুনরুদ্ধার ইপ্সিত স্থানে বদলি ও পদোন্নতির পথ সুগম করবে। অংশীদারদের সঙ্গের কলহ-বিবাদের মীমাংসা হওয়ায় ব্যবসায় যেমন লাভবান হবেন তেমনি ব্যবসার বহুল প্রচার ও প্রসার ঘটবে। শিক্ষার্থীদের জন্য বছরটি বেশ মৌজমাস্তিতে কাটবে। সন্তানরা আজ্ঞাবহ হয়ে থাকবে এমনকি কোনো না কোনো পুরস্কার পাবে। দাম্পত্য সুখ-শান্তি বজায় রাখতে আপনাকে সর্বদাই ছাড় দিতে হবে। সিজনাল রোগব্যাধির সঙ্গে সঙ্গে পুরনো ক্রনিক ব্যাধিপীড়ার প্রকোপ বাড়তে পারে। প্রেম-রোমান্স বিনোদন বিবাহ বন্ধুত্ব শুভ এমনকি সুদূরপ্রসারী হবে। হাতে থাকা প্রায় কাজই সহজে সম্পন্ন হওয়ায় বছরটি বেশ আনন্দে কাটবে। শ্রমিক-কর্মচারীদের মনে মালিকপ্রীতি দেখা দেওয়ায় কল-কারখানার উৎপাদন বৃদ্ধি পাবে। সময়মতো ব্যাংক ঋণপ্রাপ্তি হওয়ায় তারল্য সংকট কেটে যাবে। দাম্পত্য সুখ-শান্তি বজায় রাখতে নিজের প্রচেষ্টাই যথেষ্ট। ভাইবোনের সঙ্গে দূরত্ব বাড়লে আলোচনার মাধ্যমে তা মিটিয়ে নিন।

মীন রাশি

শুভ সংখ্যা-৩। শুভ তাং-৩, ১২, ২১, ৩০। শুভ রং-সোনালি, ফিরোজা, গৈরিক। শুভবার- বৃহস্পতি, শুক্র ও বুধবার। শুভরত্ন- পোখরাজ, চুনি। শুভমূল- বামুনহাটি ও বিল্বমূল।

মীন রাশি : (১৯ ফেব্রুয়ারি-২০ মার্চ)

ধার্মিক, শ্রদ্ধাবান, বুদ্ধিমান, নেতৃত্ব, সংগীতজ্ঞ ও সহিষ্ণু। ২০২১ সালটি মীন রাশির জাতব্যক্তিদের জন্য সুনাম যশ প্রতিষ্ঠা ও সফলতার গ্রাফ চাঙ্গা হয়ে উঠবে। বেকার যুবক-যুবতীদের জন্য সুবর্ণ সুযোগ অপেক্ষা করবে। নিত্য-নতুন ব্যবসা-বাণিজ্যের পরিকল্পনা বাস্তবায়িত হবে এমনকি অচল ব্যবসা সচল হয়ে উঠবে। দীর্ঘদিনের আটকে থাকা বিল পাস, কাজ সচল ও ব্যাংক ঋণপ্রাপ্ত হবেন। যোগ্য কর্ম, উচ্চশিক্ষা, ব্যবসা ও ধর্মীয় যাত্রায় বিদেশ গমনের সম্ভাবনা প্রবল। বিবাহযোগ্যদের বিবাহকার্য সুসম্পন্ন হবে এমনকি ওই বিবাহের প্রচুর উপহার প্রাপ্ত হবেন।

প্রেম যুগলের জন্য বছরটি স্মরণীয় বরণীয় ও রেকর্ড সৃষ্টিকারী বছর হিসেবে গণ্য হবে। ভাইবোন একে অপরের প্রতি সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে ধরবেন। অহেতুক দুশ্চিন্তা বাদ দিন, শত্রুরা পরাস্ত হয়ে পড়বে।

সন্তানদের ক্যারিয়ার অধ্যয়ন ও স্বাস্থ্যবিষয়ক দুশ্চিন্তা ঘুচবে। হারানো পিতৃমাতৃ ঋণ সম্পদ-সম্পত্তি ফিরে পাওয়ার পথ খুলবে। শরীর-স্বাস্থ্যের প্রতি যত্নশীল হতে হবে। জীবনসাথী ও জীবনসঙ্গীর কর্মপ্রাপ্তির বাসনা পূরণ হবে। এ বছর একাধিকবার গৃহবাড়িতে কোনো না কোনো মাঙ্গলিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হতে পারে।

 

আরো সংবাদ