এই মাত্র পাওয়া :

বাংলাদেশ , শনিবার, ৩১ অক্টোবর ২০২০

প্রধানমন্ত্রীর মোবাইল ব্যাংকিং নগদ সহায়তার তালিকায় অনিয়মের অভিযোগে রামগড়ে বাদ পড়েছে ৪শ ব্যক্তির নাম

লেখক : admin | প্রকাশ: ২০২০-০৫-১৮ ০০:৫২:৫৬




 রামগড় (খাগড়াছড়ি) প্রতিনিধি:

কোভিড-১৯ মহামারীর বিস্তার নিয়ন্ত্রণে চলমান লকডাউনের কারণে ক্ষতিগ্রস্ত ৫০ লাখ পরিবারকে ঈদ উপলক্ষে আড়াই হাজার টাকা করে নগদ সহায়তা দিচ্ছে সরকার। গণভবন থেকে গত বৃহস্পতিবার এসব সুবিধাভোগীদের মোবাইল ব্যাংকিং অ্যাকাউন্টে নগদ অর্থ পাঠানোর কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। প্রধানমন্ত্রী ঘোষিত মোবাইল ব্যাংকিং এ সহায়তা থেকে অনিয়মের অভিযোগে খাগড়াছড়ির রামগড়ে ৪শত ব্যক্তির নাম বাদ পড়েছে। এতে করে প্রধানমন্ত্রীর এ সহায়তা থেকে বঞ্চিত হচ্ছে রামগড়ে বেশকিছু দুস্ত, অসহায়, কর্মহীন ব্যক্তি ও তাদের পরিবার। জানা গেছে, উপজেলার ১টি পৌরসভা ও দুটি ইউনিয়নের জনপ্রতিনিধিদের সহযোগীতার প্রস্তুতকৃত তালিকায় নির্দেশনা না মেনে স্বচ্ছল আত্বীয় স্বজনের নাম অন্তর্ভক্ত করা, একই পরিবারের একাধিক ব্যক্তির নাম তালিকায় দেয়া, সম্পদশালী ব্যক্তিদের তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করা, রেশন কার্ড, ওএমএস কার্ডধারীদের তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করা, চাকুরিজীবি ব্যক্তির স্ত্রীর নাম তালিকাভুক্ত করা এবং প্রতিষ্ঠিত ব্যবসায়ীকে দিনমজুর হিসেবে তালিকায় অন্তভূক্ত করাসহ ব্যাপক অনিয়মের অভিযোগে প্রস্তুতকৃত তালিকার ৪শর বেশি ব্যক্তির নাম বালিত করা হয়। সরকার প্রদত্ত নীতিবহির্ভুত তালিকা তৈরীর বেশকিছু অভিযোগের ভিত্তিতে উপজেলা প্রশাসনের গঠিত যাচাই-বাচাই কমিটি এসব অনিয়মের তথ্য পেলে উপজেলার প্রায় ৭শত ব্যক্তির নাম বাতিল হয়ে যায়। যাচাই বাচাইয়ে জড়িত নাম প্রকাশে অনৈচ্ছুক এক কর্মকর্তা জানান, মাত্র দুদিন সময়ে যাচাই বাচাইয়ে সবকিছু দেখা সম্ভব হয়নি সময় পেয়ে যাচাই বাচাই করা গেলে আরো অসংখ্য নাম তালিকা থেকে বাদ পড়বে।

পরে নিবিড় পর্যবেক্ষণ করে ৩শ ব্যক্তিকে তালিকায় পুনরাভিক্তি করা হয়। এরমধ্যে ৪শ জনের নাম বাতিল করা হয়। খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, জনপ্রতিনিধিদের করা তালিকায় অনেক পরিবহন শ্রমিক, ভ্যান চালক, লেবার, স্বামী পরিতক্তা মহিলা, বিধাব মহিলা, দিনমজুরকে অন্তভুক্ত করা হয়নি। এরমধ্যে সর্বশেষ যাচাই বাচাই শেষে চুড়ান্ত তালিকায় স্থান পেয়েছে ৫হাজার ৮২টি নাম। উপজেলা নির্বাহী অফিসার আ.ন.ম বদরুদ্দোজা জানান, এ তালিকাটি প্রাথমিক তালিকা। এখানে ক্রুটি বিচ্যুতি ছিল। তালিকায় বেশ অসঙ্গতি ধরা পড়ায় তা সংশোধনের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। অনিয়ম ঠেকাতে সরকারি কর্মকর্তাদের দিয়ে যাচাই বাচাই করে সুনিদিষ্ট কারনে ৪শত জনের নাম বাদ দেয়া হয়েছে। বাদ পড়া সংখ্যার বিপরীতে নতুন নাম অন্তভুক্ত করা আপাতত হচ্ছেনা বলেও তিনি জানান। তবে নির্দেশনা পেলে নতুন অন্তভুক্তি করা হবে।

Print Friendly and PDF